• সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ০১:১৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম
কাপ্তাইয়ে ছাত্র ছাত্রীদের অংশগ্রহনে সচেতনতামূলক কর্মশালা  কাপ্তাইয়ে ৬৭৫ জন মৎস্যজীবিদের  মাঝে ভিজিএফ এর চাল বিতরণ দুর্গম পাহাড়ি সড়কে মোটরসাইকেল চালকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সেনাবাহিনীর হেলমেট বিতরণ গাজায় ইসরায়েলের ভয়াবহ হামলা, নারী-শিশুসহ নিহত ৩৫ দুর্যোগ মোকাবেলায় দীঘিনালায় ২১ আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত বান্দরবানে কেএনএফ সন্দেহে গ্রেপ্তার ৪ জন রিমান্ডে গুইমারায় ঘূর্ণিঝড় রেমালের সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি এড়ানোর লক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসনের সতর্ক বার্তা জারি কাপ্তাই লগগেইট জয়কালী মন্দিরে সংবর্ধিত হলেন নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান নাছির উদ্দীন পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে দুদিনব্যাপী অনুষ্ঠানের আয়োজন ঘূর্ণিঝড় রিমালের প্রভাবে তলিয়ে গেলো সুন্দরবনের পর্যটনকেন্দ্র কাপ্তাইয়ে টিসিবির পণ্য পেল ১৬৭৭ জন ঘুমধুম সীমান্তে মাইন বিস্ফোরণে একজনের পা বিচ্ছিন্ন

মহেশখালীতে খড়-কুটোয় শীত নিবারণের চেষ্টা, কুয়াশায় বিপর্যস্ত জনজীবন

হ্যাপী করিম, স্টাফ রিপোর্টার (মহেশখালী) / ২৩৫ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : শনিবার, ১৩ জানুয়ারী, ২০২৪

হ্যাপী করিম, মহেশখালী
চট্টগ্রামের দক্ষিণ জেলা কক্সবাজারে তীব্র শীত আর ঘন কুয়াশায় বিপর্যস্ত সাধারন মানুষের জীবন। নিতান্ত প্রয়োজন কিংবা জীবিকার তাগিদে ছুটে চলা সাধারন মানুষের দেখা মিলছে পথে-ঘাটে। সবচেয়ে বেশি বিপাকে পড়েছেন নিম্ন আয়ের খেটে-খাওয়া মানুষ। খড়কুটো জ্বালিয়ে শীত নিবারণের চেষ্টা করছেন সাধারণ মানুষেরা।

সরেজমিন উপজেলার ছোট মহেশখালী থেকে কুতুবজোম আসার পথে প্রধানসড়কে সিএনজি ও টমটম যানবাহন গুলোকে হেডলাইট জ্বালিয়ে ধীর গতিতে চলাচল করতে দেখা যায়। এদিকে হাসপাতাল গুলোতে বেড়েছে শীতজনিত রোগীর সংখ্যা। আবহাওয়া অফিসের তথ্য মতে, শনিবার কক্সবাজার জেলায় সকাল ৬ টায় টায় সর্বউচ্চ তাপমাত্রা ২৫ ডিগ্রি থেকে সর্বনিম্ন ১৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস, বাতাসের আদ্রতা ৮০ শতাংশ রেকর্ড করা হয়েছে। কক্সবাজার জেলা আবহাওয়া অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আব্দুল হান্নান জানান, আজ শনিবার কক্সবাজারে সকাল ৬ টায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস, বাতাসের আদ্রতা ৮০ শতাংশ রেকর্ড করা হয়েছে। আজ দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ দশমিক ৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস চুয়াডাঙ্গা ও নিকলীতে। জেলায় চলতি শীত মৌসুমে সর্বনিম্ন ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার রেকর্ড করা হয়েছিল। চলতি সপ্তাহে জেলায় বৃষ্টিপাত হতে পারে। সে ক্ষেত্রে তাপমাত্রা কমতে শুরু করবে। এ ছাড়াও জানুয়ারি মাসে কক্সবাজার জেলার পাশ্ববর্তী উপজেলা ওপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

ইজিবাইক চালক নাছির উদ্দীন বলেন, ঘন কুয়াশা আর ঠান্ডা বাতাসে মানুষ ঘর থেকে বাইরে বের হচ্ছে না। এখন বেলা বারটা বাজে অথচ  এক’শ টাকাও ভাড়া মারতে পারিনি। শীতের করনে আয় রোজগার কম। অগের তুলনায় এখন অর্ধেক টাকাও আয় হয় না। কষ্ট করে পরিবার নিয়ে দিন চলছে।

মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ মোহাম্মদ আজমল হুদা (আরএমও) জানান, হাসপাতাল গুলোতে শীতজনিত রোগে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েছে। এ সময় চলাফেরায় সবাইকে সাবধান হতে হবে, বিশেষ করে শিশু ও বয়স্কদের ঠান্ডা লাগানো একেবারেই যাবে না। পাশাপাশি গরম পানি খাওয়া ও গরম কাপড় পরিধান করতে হবে।খুব বেশি প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের না হওয়ার পরামর্শ দেন তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ