• শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ১২:২৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম
মহালছড়িতে বৈসাবি ফুটবল টুর্নামেন্টে অংম্রাং ক্লাব চ্যাম্পিয়ন বান্দরবানে জলবায়ু ধর্মঘট করেছে ইয়ুথনেট বান্দরবানে যৌথ অভিযানে গণগ্রেফতার ও হয়রানির প্রতিবাদে খাগড়াছড়িতে পিসিপির বিক্ষোভ মিছিল মানিকছড়িতে সাংগ্রাই উপলক্ষে ঐতিহ্যবাহী বলি খেলা অনুষ্ঠিত সামাজিক অনুষ্ঠানে প্রার্থীদের সবর উপস্থিতি অসাম্প্রদায়িক ও স্মার্ট জনপদ গড়ার অঙ্গীকার তীব্র দাবদাহ বিদ্যুৎ বিভ্রাট পোল্ট্রি খামারে হাঁসফাঁস অবস্থা! খাগড়াছড়ি পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের সম্মেলন ২০ এপ্রিল ব্যাংকে হামলা: ১৮ নারীসহ ৫৩ কেএনএফ সন্ত্রাসীর রিমান্ড মঞ্জুর মানিকছড়িতে মোবাইল কোর্টে জরিমানা নতুন বাজার আনন্দ মেলা খেলার মাঠে গোলবার প্রদান করলেন কাপ্তাই সেনা জোন

চরফ্যাসনে ট্রলার ডুবিতে ২ জন নিখোঁজ উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত!

হাসান লিটন, চরফ্যাসন প্রতিনিধি: / ৩৪৭ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর, ২০২১

আকস্মিক ঘুণিঝড়ের কবলে পড়ে ভোলার চরফ্যাসন উপজেলার দক্ষিণ আইচা থানার চরকুকরী মুকরী ইউনিয়নের চরপাতিলা এলাকার মেঘনা নদীতে ট্রলারডুবির ১৮ ঘন্টা পর বৈরী আবহাওয়া ও নদীর ঢেউয়ের কারনে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স টিমের ডুবুরী দল নদীতে উদ্ধার অভিযান স্থগিত ঘোষণা করেছেন। এ ঘটনায় মা ও ছেলে এখন নিখোঁজ রয়েছেন। রোববার দুপুরে চর পাতিলা থেকে চর কচ্ছপিয়া আসার পথে মেঘনা নদীতে আকস্মিক ঘুর্ণিঝড়ের কবলে পড়ে পণ্যবাহী ট্রলারে একই পরিবারের ৯ জন নদী পার হওয়ার সময় ঝড়ের কবলে পড়লে ট্রলারটি উলটে ঘটনাস্থলে জোনায়েদ (৩) নিহত সহ স্বপন (৩০) ও বিলকিস (৫০) নিখোঁজ হয়। খরব পেয়ে চরমানিকা আউটপোষ্ট কোষ্টগার্ড ও স্থাণীয়ার উদ্ধার কাজ পরিচালনা করে জোনায়েদকে মৃত সহ ৭ জনকে উদ্ধার করে। দিন ব্যাপী উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করে নিখোঁজদেও কোন সন্ধান না পাওয়ার কারনে চরকুকরী মুকরী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবুল হাসেম মহাজন ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সে ডুবুরী দলের অভিযান প্রয়োজনীতার কথা জানালে ২য় দিনে বরিশাল থেকে ২জন ডুবুরী, ভোলা জেলা ষ্টেশন কমান্ডার, চরফ্যাশন ষ্টেশন কমান্ডারের নের্তৃত্বে ৭ জন দুপুর ২টার সময় দুর্ঘটনাস্থল পৌছে সন্ধ্যা নাগাদ চেষ্টা করেন। ভোলা জেলা ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন কমান্ডার জানান, দীর্ঘ সময় অপেক্ষার পরও নদী শীতল না হওয়ার কারনে উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়। এ সময় তাদের সাথে কোষ্টগার্ড, কুকরী মুকরী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ফাড়ি ইনচার্জ এসআই আবু হানিফ,ইউপি সদস্য বাদশা, ও নিখোঁজ স্বপনের ভাই মামুন সহ এলাকাবাসী উপস্থিত ছিল।
মামুন জানান, তার বড় ভাই স্বপন ভাবি রোজিনা মা বিলকিস ও ২ ভাতিজা জোনায়েদ ও জোবায়েরকে নিয়ে শ্বশুড় মতলব ফকিরের বাড়ীতে বেড়াতে আসেন । ৩দিন পর মুজিবনগর সিকদারের চর ৯ নং ওয়ার্ডে নিজ বাড়ী ফেরার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ