• সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২:২৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম
গাজায় ইসরায়েলের ভয়াবহ হামলা, নারী-শিশুসহ নিহত ৩৫ দুর্যোগ মোকাবেলায় দীঘিনালায় ২১ আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত বান্দরবানে কেএনএফ সন্দেহে গ্রেপ্তার ৪ জন রিমান্ডে গুইমারায় ঘূর্ণিঝড় রেমালের সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি এড়ানোর লক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসনের সতর্ক বার্তা জারি কাপ্তাই লগগেইট জয়কালী মন্দিরে সংবর্ধিত হলেন নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান নাছির উদ্দীন পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে দুদিনব্যাপী অনুষ্ঠানের আয়োজন ঘূর্ণিঝড় রিমালের প্রভাবে তলিয়ে গেলো সুন্দরবনের পর্যটনকেন্দ্র কাপ্তাইয়ে টিসিবির পণ্য পেল ১৬৭৭ জন ঘুমধুম সীমান্তে মাইন বিস্ফোরণে একজনের পা বিচ্ছিন্ন গোয়ালন্দ উপজেলা ছাত্রদলের সা: সম্পাদক কে হত্যার চেষ্টা চিকিৎসক ও নার্স সংকটে পানছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কাপ্তাই জেলা নৌ স্কাউটসের ১১ জন স্কাউটস এর  প্রেসিডেন্ট’স স্কাউট অ্যাওয়ার্ড অর্জন 

১শ ৬১ ইউপি নির্বাচনের ভোটগ্রহণ কাল

নিজস্ব প্রতিবেদক: / ৩৫৭ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১

করোনার কারণে স্থগিত হওয়া প্রথম ধাপের ১৬১টি ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের প্রচারণা শেষ হয়েছে গতকাল শনিবার মধ্যরাতে। প্রার্থীরা রাত ১২টা পর্যন্ত প্রচারণা চলান। এছাড়াও দেশের ৯টি পৌরসভা এবং স্থানীয় সরকার পরিষদের কয়েকটি উপনির্বাচনের প্রচার-প্রচারণাও শেষ হয় এই সময়ে। এসব নির্বাচনের ভোটগ্রহণ হবে আগামীকাল সোমবার। এদিন সকাল ৮টা থেকে বিকের ৪টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ চলবে। তবে নির্বাচনী এলাকায় কোনো সাধারণ ছুটি থাকছে না। নির্বাচনী কর্মকর্তাদের প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ শেষ হয়েছে। আজ রোববার প্রতিটি কেন্দ্রে নির্বাচনী সামগ্রী পৌঁছে যাবে। স্থানীয় সরকার নির্বাচন আইন অনুযায়ী, ভোটগ্রহণ শুরুর ৩২ ঘণ্টা আগে প্রচার-প্রচারণা বন্ধ করতে হয়। সে হিসাবে ১৮ সেপ্টেম্বর রাত ১২টায় প্রচার কাজ বন্ধ করতে হবে। এ সময়ের পর প্রার্থী বা সমর্থকদের কেউ কোনো ধরনের প্রচারণা চালাতে পারবেন না। এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের যুগ্ম সচিব আসাদুজ্জামান বলেন, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য ইতোমধ্যেই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা মাঠে নেমেছেন। নির্বাচন সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা সাধারণ ছুটির আওতায় থাকবেন। এ ছাড়া ভোট দেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান থেকে ছুটি নিতে পারবেন ভোটাররা। নির্বাচনী এলাকায় যেসব যান চলাচল বন্ধ: গতকাল শনিবার রাত ১২টা হতে ২১ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা পর্যন্ত নির্বাচনী এলাকায় মোটরসাইকেল চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। এ ছাড়া ভোটের আগের দিন ১৯ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা হতে ভোটের দিন ২০ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা পর্যন্ত নির্বাচনী এলাকায় ট্রাক ও পিকআপ, লঞ্চ, স্পিডবোট এবং ইঞ্জিনচালিত নৌযান চলাচল বন্ধ থাকবে। এ ছাড়া জরুরি সেবাসহ অন্যান্য পরিবহন চলাচল করতে পারবে।

প্রথমধাপে দেশের ১৯টি জেলার ৬৪টি উপজেলার ৩৭১টি ইউপিতে নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য তফসিল ঘোষণা করেছিল ইসি। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী ১১ এপ্রিল এসব নির্বাচন হওয়ার কথা ছিল। তবে করোনা বেড়ে যাওয়ায় ওই নির্বাচন স্থগিত করা হয়। পরে গত ২১ জুন স্থগিত ইউপির মধ্যে ২০৪টির ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। আর সোমবার ২০ সেপ্টেম্বর হবে ১৬১টি ইউপির।

এ বিষয়ে ইসি সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার বলেন, চলতি মাসের শেষদিকে আরও একটি কমিশনসভা অনুষ্ঠিত হবে। সেই সভায় বাকি ইউপি নির্বাচনের তফসিলের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে। তিনি বলেন, কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে এ বছর ডিসেম্বরের মধ্যে দেশের চার হাজার ইউপি নির্বাচন শেষ করবে। তবে কয়টি ধাপে নির্বাচন শেষ হবে এ বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। পরবর্তীতে বসে কমিশন সিদ্ধান্ত নেবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ