• রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ০৫:০৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
ঈদ উপলক্ষে হরিহরনগর ইউনিয়ন পরিষদে ভিজিএফের চাল বিতরণ বাগেরহাটে বেআইনীভাবে প্রস্তুত হচ্ছে শামুকের খোলস পুড়িয়ে চুন ২ এপিবিএন, মেঘলা, বান্দরবান কর্তৃক একজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার দেশ সেরা এটিও কাপ্তাইয়ের আশীষ কুমার আচার্য্য বাকী আছে ১দিন-গরু বাজারে ভীড় ক্রেতা ও বিক্রেতার শার্শা বেনাপোল বন্দরের ৫ দিন বন্ধ থাকবে আমদানি-রপ্তানি মোংলায় দিন দুপুরে দোকান ঘর ভাংচুর ও জবর দখলের চেষ্টা লংগদুতে বজ্রপাতে নিহত ৪ নিখোঁজ ১ মহালছড়ি সেনা জোনের উদ্যোগে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ মাটিরাঙায় সেনাবাহিনীর বিশেষ মানবিক সহায়তা কাপ্তাই শিল্প এলাকা হতে উদ্ধার ১২ টি পান কৌড়ি  শেখ রা‌সেল এভিয়ারী এন্ড ইকো-পার্কে হস্তান্তর  আসছে সামনে ঈদুল আযহা উপলক্ষে কোরবানির গরুর হাট

পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদকে ভুঁইফোঁড় সংগঠন বলায় পিসিসিপি’র প্রতিবাদ

স্টাফ রিপোর্টার / ২৫২ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : শুক্রবার, ২৪ মে, ২০২৪

 

স্টাফ রিপোর্টার: রাঙামাটি:
পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি)কে ভুঁইফোঁড় সংগঠন বলায় ও উক্ত সংগঠনের চেয়ারম্যান কাজী মজিবর রহমান এর বিরুদ্ধে উস্কানিমূলক মিছিল ও সমাবেশ করায় অদ্য (২৪ মে) শুক্রবার বিকেলে গণমাধ্যমে বিবৃতি দিয়ে তিব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রাম ছাত্র পরিষদ (পিসিসিপি)। পার্বত্য চট্টগ্রাম ছাত্র পরিষদ (পিসিসিপি’র) কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন কায়েশ ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ হাবীব আজম যৌথ বিবৃতিতে প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন, গতকাল (২৩ মে) বৃহস্পতিবার পার্বত্য চট্টগ্রামের রাষ্ট্রবিরোধী বিচ্ছিন্নতাবাদী পাহাড়ি সশস্ত্র সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) এর সন্ত্রাসী কর্মকান্ড নির্মূলে যৌথবাহিনীর অভিযান অব্যাহত রাখা, মৃত আইন হিলট্র্যাক্স রেগুলেশন-১৯০০ শাসনবিধি বাতিল ও লামা, আলীকদম, নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি’র) নেতাদের প্রাণনাশের হুমকি ও মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে- “সংবাদ সম্মেলন” অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সংবাদ সম্মেলনের জেরে আজ পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি) কে ভুঁইফোঁড় সংগঠন বলে ও পিসিএনপি’র চেয়ারম্যান কাজী মজিবর রহমান এর বিরুদ্ধে উস্কানীমূলক ভাবে কিছু ভুঁইফোঁড় আওয়ামীলীগের নেতা নিজেদের অপরাধ আড়াল করতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে বান্দরবান জেলা আওয়ামীলীগের ব্যানারে। যা পার্বত্য চট্টগ্রামের পরিস্থিতি ঘোলাটে করতে উস্কানি দেওয়ার সামিল।

বিবৃতিতে পিসিসিপি’র কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ বলেন,
পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ ‘পিসিএনপি’ দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সংগ্রাম করে যাচ্ছে, পাহাড়ে চলমান সকল অন্যায়, জুলুমের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করছে। আর আপনারা ভুঁইফোঁড় নেতারা মুখে কুলুপ এঁটেছেন। সকল সত্য যখন উন্মোচিত হচ্ছে তখন দেশপ্রেমিক, অধিকারহারা মানুষদের একমাত্র কন্ঠস্বর পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ নিয়ে বিভিন্ন রকম ষড়যন্ত্র করছেন, নানা রকম ট্যাগ দিচ্ছেন, যা অত্যান্ত দু:খজনক৷
আজ যেখানে প্রধানমন্ত্রী নিজেই পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের কথা গুলো বলছেন যে পার্বত্য চট্টগ্রাম ও মিয়ানমারের কিছু অংশ নিয়ে দেশী-বিদেশী গভীর ষড়যন্ত্র চলছে, সেখানে বান্দরবানের কিছু আওয়ামীলীগের নামধারী ‘ভুঁইফোড়’ নেতারা পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি) ও কাজী মজিবর রহমানকে নিয়ে পাগলের প্রলাপ বকছেন, অসলংগ্ন মন্তব্য করছেন, যা অত্যান্ত লজ্জাজনক বিষয়।

আরো লজ্জাজনক ও হাস্যকর বিষয় হলো বান্দরবানের যে নামধারী ভুঁইফোঁড় নেতারা আজকে পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে উস্কানিমূলক মিছিল সমাবেশ করেছেন তারা কখনোই বান্দরবানে দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্রকারী সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন কেএনএফ ও জেএসএসের বিরুদ্ধে কোন মিছিল বা প্রতিবাদ সমাবেশ করেননি।
এমনকি এসব দেশ বিরোধী আঞ্চলিক সশস্ত্র সংগঠন কর্তৃক কোন আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীদের হত্যা করা হলে তার বিরুদ্ধেও কোন প্রতিবাদ কখনো করেননি।

আজকে যখন কেএনএফকে আলোচনার নামে সময় দিয়ে আরো সুসংগঠিত হওয়ার সুযোগ করে দিলেন আপনারা, তখন পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদের পিসিএনপি’র কেন্দ্রীয় কমিটির চেয়ারম্যান কাজী মজিবর রহমান গতকাল (২৩ মে) বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলন করে বললেন,
“একটি বছর আলোচনার নামে কেএনএফের বিরুদ্ধে অভিযান বন্ধ করে রেখে সেই সুযোগে কেএনএফের সদস্য সংখ্যা, অস্ত্রের মজুত ও সব শক্তি বৃদ্ধি করে সরকারি বাহিনীর বিরুদ্ধে আক্রমণ; এ অঞ্চলে অস্থিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টি করে পাহাড়ে বসবাসকারী বাঙালিদের বিতাড়িত করে কুকি-চিন নামে যে রাষ্ট্র গড়তে চায় তার সঙ্গে ক্যা শৈ হ্লা জড়িত।
যার প্রমাণ থানচিতে ব্যাংক ডাকাতি ঘটনার দুদিন আগে তিনি থানচিতে অবস্থান করেছিলেন এবং কেএনএফের সঙ্গে মিটিং করেছিলেন। তিনি আসার পরে ব্যাংক ডাকাতি ও অস্ত্র লুট হয়েছে। যে কারণে আজ সেনা, বিজিবি ও পুলিশ সদস্যদের বিরূপ পাহাড়ি পরিবেশে অভিযান পরিচালনা করতে হচ্ছে”

এই সত্য কথা প্রকাশ করে দেয়াতে কিছু নেতার এখন আঁতে ঘা লেগেছে। তাই এখন পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদকে ভুঁইফোঁড় সংগঠন বলছেন আপনারা, আসলে আপনারা যারা নাগরিক পরিষদকে ভুঁইফোঁড় সংগঠন বললেন, আপনারা নিজেরাই হলেন ভুঁইফোঁড় নেতা। পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি) কোন বানের জলে ভেসে আসা সংগঠন নয়, এই সংগঠন পাহাড়ে বাঙালি সহ অধিকার হারা প্রতিটি জনগোষ্ঠীর পক্ষে কথা বলার একমাত্র সংগঠন। এই সংগঠন পাহাড়ে সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন গুলোর আতংক। এই সংগঠন বাংলাদেশের এক-দশমাংশ এলাকা ও এর অখন্ডতা রক্ষার সংগঠন।
পার্বত্য চট্টগ্রাম নিয়ে দেশীয় ও আন্তর্জাতিক সকল ষড়যন্ত্র রুখে দেওয়ার একমাত্র সংগঠন পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি)। তাই এই সংগঠন নিয়ে আপনাদের মত ‘ভুঁইফোঁড়’ নেতাদের কোন মন্তব্য মানায় না। আপনাদের জবাব দেওয়ার জন্য পার্বত্য চট্টগ্রাম ছাত্র পরিষদ (পিসিসিপিই) যথেষ্ট। আপনারা আজকে যে দুঃসাহস দেখিয়েছেন কাজী মজিবর রহমান এর বিরুদ্ধে উস্কানিমূলক বিক্ষোভ করে আমরা চাইলে তার বিপরীতে যে কোন মুহুর্তেই তিন পার্বত্য জেলা একই টাইমে অচল করে দিতে পারি, আমাদের সেই সক্ষমতা আছে। কিন্তু আমরা শান্তির লক্ষ্যে পাল্টা কর্মসূচী দেইনি।

বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, পিসিসিপি হুশিয়ার করে দিচ্ছে পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ (পিসিএনপি) ও এই সংগঠনের চেয়ারম্যান কে নিয়ে কোন অসংলগ্ন মন্তব্য ও কোন উস্কানিমূলক অবস্থান পার্বত্য চট্টগ্রাম ছাত্র পরিষদ (পিসিসিপি) কেন্দ্রীয় কমিটি মেনে নিবে না। এর জন্য আমরা যে কোন মুহূর্তে একই সময়ে তিন পার্বত্য জেলা অচল করে দিয়ে যথাযথ জবাব দিতে প্রস্তুত। আজ পার্বত্য চট্টগ্রামের সর্বস্তরের সাধারণ জনগণ আপনাদের উক্ত হীন কর্মসূচি ও বক্তব্য ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করেছে। আমরা উক্ত ঘৃণ্য বক্তব্য অবিলম্বে প্রত্যাহার এবং পার্বত্য চট্টগ্রামের চলমান বৈষম্য, নৈরাজ্য নিরসনে ও দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষার্থে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানাচ্ছি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ