• বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:১১ অপরাহ্ন
শিরোনাম
রাঙামাটি শহরে ছিনতাইএ জড়িত তিন চাকমা যুবক আটক ভারতের রাজস্থানের আইসিইউতে ধর্ষণে শিকার তরুণী বাঙ্গালহালিয়া পাবনাটিলা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষার মনোন্নয়নে অভিভাবক সমাবেশ অনুষ্ঠিত লক্ষ্মীছড়িতে পিতার জীবদ্দশায় বেচা সম্পত্তি সন্তানের অস্বীকার! ভোগ-দখলে থাকা ক্রেতারা হতবাক পদর্শনী খামারে মৎস্য চাষীর মাঝে উপকরণ বিতরণ মাটিরাঙ্গা মিউনিসিপ্যাল মহিলা কলেজ’ প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ রাঙামাটিতে দুইটি বসত ঘর আগুনে পুড়ে ছাই এবার বন্যহাতির আবাসস্থল ধ্বংস করে ইটভাটা ! মাদক থেকে দূরে রাখতে খেলাধুলার বিকল্প নেই- বীর বাহাদুর মানিকছড়ি ইংলিশ স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া ও পুরস্কার বিতরণ

বরকল উপজেলার ভূষনছড়ায় তিন শতাধিক লোকের মানব বন্ধনে চেয়ারম্যান মামুনের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবী

এস চৌধুরী, কাপ্তাই, রাঙ্গামাটি / ৬৪২ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : শুক্রবার, ৭ আগস্ট, ২০২০

এস চৌধুরী, কাপ্তাই, রাঙ্গামাটি

আজ ৭ই আগস্ট  রোজ শুক্রবার বরকল উপজেলার ভুষনছড়াতে ইউপি চেয়ারম্যান মো মামুনুর রশীদ মামুনের পক্ষে  মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ  করেছেন ভুষনছড়া ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগণ ।প্রায় ৩০০ লোকের উপস্থিতিতে উক্ত মানব বন্ধন কর্মসুচীটি পালন করা হয়।

উক্ত মানব বন্ধন কর্মসুচীতে এলাকাবাসীর পক্ষে অত্র  উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য এবং উপজেলা সহ সভাপতি ও প্রবীন  ব্যাক্তিত্ব মো আবু বক্কর মোল্লা জানান,এটি একটি বিশেষ গোষ্ঠী কতৃক সুপরিকল্পিত মিথ্যা সাজানো একটা মামলা। মামুন চেয়ারম্যানকে সামাজিক ও রাজনৈতিকভাবে হেনস্তা করার জন্য উক্ত ব্যাক্তিগন এই কাজটি করেছেন।আমার জানা মতে,তিনি অত্যান্ত সৎ ও আদর্শবান ব্যাক্তি।তিনি চেয়ারম্যান হবার পরে ভুষনছড়াতে রেকর্ড সংখ্যক উন্নতি সাধন হয়েছে। প্রতিটি মসজিদও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে  সোলার প্যানেল স্থাপন থেকে শুরু করে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ এলাকার প্রতিটি রাস্তা বারবার মেরামত করে গেছেন প্রতিটি বছরই। অনেক দরিদ্র শিক্ষার্থীদের পড়া লেখার খরচ তিনি এখোনো বহন করছেন।তার হাত ধরেই ভুষনছড়াতে একটি কলেজ স্থাপনের পরিকল্পনা চলতেছে।এছাড়াও তার সহায়তায় অত্র ইউনিয়নে ত্রান, কম্বল, বয়স্ক ভাতাসহ অন্যান্য সুবিধাসমুহ আগের তুলনায় অনেক বেশি পাচ্ছে অত্র এলাকার জনগন।বর্তমানে একটি গোষ্ঠী মামুন চেয়ারম্যানের অবর্তমানে বিভিন্ন ধরনের ভয় ভীতি প্রদর্শন করে এলাকার সাধারন মানুষগুলোকে জিম্মি করে রাখতে চাচ্ছে। তারা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন ব্যাক্তিকে ধরে ভয় দেখিয়ে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অযথা মিথ্যা বানোয়াট কিছু ভিডিও বানিয়ে ফেইসবুকের মাধ্যমে প্রচার করে যাচ্ছে। আমরা এলাকাবাসী এসবের প্রতিকার চাই।

সম্মেলনে বরকল উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য  উপজেলা আওয়ামী লীগের যুব ক্রীড়া সম্পাদক মো আব্দুল আউয়াল সিকদার বলেন, মামুন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগটি সম্পুর্ন মিথ্যা। তিনি অত্যান্ত ভালো একজন মানুষ। আমরা সবাই তার বিরুদ্ধে হওয়া মিথ্যা মামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। এলাকার কিছু সুবিধালোভী ব্যাক্তি অাঞ্চলিক সন্ত্রাসী সংগঠনের সাথে হাত মিলিয়ে একের পর এক ষড়যন্ত্র করে নৌকা প্রতিকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের এই চেয়ারম্যানকে ক্ষতি করার জন্য সর্বদা চেষ্টা করে যাচ্ছে। মামুন চেয়ারম্যানের চেষ্টায় ও আমাদের সহযোগীতায় জেএসএস এর অভয়ারন্য ভুষনছড়াতে আজ নৌকা তথা আওয়ামী লীগের শক্ত অবস্থান গড়ে উঠেছে। আর আজ আওয়ামী লীগে অনুপ্রবেশকারী একটা গোষ্ঠি তাকেই ধ্বংশ করার জন্য জেএসএস এর সাথে মিলে পায়তারা চালিয়ে যাচ্ছে। আমরা  এসব রাজনৈতিক জটিলতার স্থায়ী সমাধান দাবি করছি।পাশাপাশি মামুন চেয়ারম্যানকে এলাকায় ফিরিয়ে এনে তাকে বিভীন্ন ষড়যন্ত্র করে বন্ধ করে দেয়া  আওয়ামী লীগের সম্মেলন পুনরায় করে তাকে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে তাকে  ঘোষণা দেবার জন্য জেলা নেতৃবৃন্দের নিকট জোর দাবী জানাচ্ছি।

এছাড়াও উক্ত মানববন্ধনে  বক্তব্য রাখেন,ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক মো আজমত আলী, ইউপি সদস্য আব্দুস ছবুর তালুকদার, আব্দুল হাই,আব্দুল জলিল,মিনারা বেগম,শেফালী বেগম,মানিক মিয়া সহ আরো অনেকে

অত্র ইউনিয়নের মহিলাদের পক্ষে  বিভিন্ন মহিলারা বলেন,নারীদের প্রতি মামুনের যথেষ্ট শ্রদ্ধা ছিলো।সে কখনোই এলাকার কোন নারীর সাথে দুর্ব্যবহার করে নাই।বিভিন্ন বিপদে আপদে সে দল মত নির্বিশেষে প্রতিটি মানুষের পাশে দাড়িয়েছে।সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে প্রতিটি পরিবারে।তার  কারনেই গ্রাম্য বিচারের নামে অত্র এলাকার সাধারণ মানুষের থেকে জোর করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নেবার প্রথার বিলুপ্তি ঘটেছে।বিগত বছরগুলোতে অত্র এলাকার মামলা মোকদ্দমাকে তিনি প্রায় শুন্যের কোটায় নামিয়ে নিয়ে এসেছেন।বর্তমানে অত্র এলাকার কিছু দুর্নীতিবাজ এক হয়ে সাধারণ মানুষকে ভুল বুজিয়ে তার অবর্তমানে তার বিরুদ্ধে ক্ষেপিয়ে তোলার চেষ্টা করতেছে।আমরা এসব কুচক্রী মহলের হাত থেকে নিস্তার চাই।আমরা পুনরায় আমাদের চেয়ারম্যানকে সসম্মানে এলাকায় ফেরত পেতে চাই।

এসময় অত্র এলাকার  নারী পুরুষ মিলে প্রায় তিন শতাধিক সাধারন মানুষের উপস্থিতিতে উক্ত সম্মেলনটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ