Header Border

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬শে মে, ২০২০ ইং | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল) ২৭°সে
শিরোনাম :
কোয়ারেন্টিনে ১৫,০০০ রোহিঙ্গা, আক্রান্ত সংখ্যা ২৯ কমিউনিটি ট্রান্সমিশন শুরুর আশঙ্কা মাদারীপুরে এক পুলিশ সদস্য সহ ০৪জন করোনা আক্রান্ত ঘোরাঘাটে পানি নিষ্কাসনকে কেন্দ্র করে প্রতিবেশীর হাতে নিহত ১ দি চেঙ্গী চাইল্ড হোম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজের শুভ উদ্বোধন কাপ্তাই জল বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রবেশ মুখ স্মরন কালের লকডাউন মাদারীপুরে মোটরসাইকেল দূর্ঘটনায় নিহত ১ ঈদে ভবঘুরে পাগলদের মাঝে খাবার বিতরণ করলেন জনসেবা যুব কল্যাণে আমরা চোলাই মদসহ মাগুরায় দুই মাদক বিক্রেতা গ্রেফতার পানছড়িতে ঈদ সামগ্রী বিতরণ করলো জুনাব আলী ফাউন্ডেশন রাঙামাটিবাসীকে কাউখালী উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আলমের ঈদ শুভেচ্ছা

জ্বলছে আসাম, বিক্ষোভের আগুনে জ্বলছে কয়েকটি রাজ্য, নিহত ৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: জ্বলছে আসাম, পুড়ছে ত্রিপুরা; স্তব্ধ মণিপুর, ইন্টারনেট বন্ধ। ক্যাবের বিরুদ্ধে চলছে প্রবল বিক্ষোভ। বহুল বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাস হওয়ার পর থেকেই আসাম, ত্রিপুরা, উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় অন্যান্য রাজ্যগুলো এমনকি রাজধানী দিল্লিসহ বিভিন্ন স্থান থেকে বেশ কয়েকটি বিক্ষোভের খবর পাওয়া গেছে। ত্রিপুরায় প্রশাসন ৪৮ ঘন্টা ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে দিয়েছে। সহিংসতায় বিধ্বস্ত আসামে কারফিউ জারি করা হয়েছে।

এদিকে পঞ্চম দিনের মতো টানা বিক্ষোভ করছেন দেশটির উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় বিভিন্ন রাজ্যের হাজার হাজার মানুষ। শুধুমাত্র আসামেই পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ, বিক্ষোভকারীদের আগুনে রোববার পর্যন্ত অন্তত ছয়জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এদের মধ্যে তিন বিক্ষোভকারীর প্রাণ গেছে পুলিশের গুলিতে।

এছাড়া অন্যান্য এলাকায় বিক্ষোভকারীদের সামনে শত শত পুলিশ সদস্যকে নীরব থাকতে দেখা যায়। বিক্ষোভকারীরা নাগরিকত্ব আইনের বিরোধীতা করে বিভিন্ন ধরনের স্লোগান দেন। অনেকের হাতে ‘আসাম দীর্ঘজীবী হোক’, ‘নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন চাই না’ লেখা ব্যানার দেখা যায়।

আসামের কর্মকর্তারা বলেছেন, রোববার নিরাপত্তা বাহিনীর কড়াকড়ি কিছুটা রাজ্যের তেল এবং গ্যাস উৎপাদনে কারফিউয়ের ধাক্কা লেগেছে। তবে অনেকেই দোকানপাট খুলতে শুরু করেছেন। গত বুধবার ভারতের পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষ রাজ্যসভায় বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাস হয়। পরদিন রাষ্ট্রপতি এই বিলে স্বাক্ষর করলে সেটি আইনে পরিণত হয়।

এই আইনে বলা হয়েছে, ২০১৪ সালের ৩১ ডিসেম্বরের আগে প্রতিবেশি বাংলাদেশ, পাকিস্তান এবং আফগানিস্তান থেকে যেসব অমুসলিম শরণার্থীরা ভারতে গেছেন তারা দেশটির নাগরিকত্ব পাবেন। তবে মুসলিম শরণার্থীদের ব্যাপারে আইনে কিছুই বলা হয়নি।

এদিকে, শিয়ালদহ, হাওড়া ও কলকাতা স্টেশন থেকে একাধিক দূরপাল্লার ট্রেন বাতিল করা হয়েছে। যার ফলে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন যাত্রীরা। জানা গেছে, হাওড়া দিঘা তাম্রলিপ্ত এক্সপ্রেস, হাওড়া-মালদা ইন্টারসিটি এক্সপ্রেস, হাওড়া কাটিয়ার এক্সপ্রেস, আজিমগঞ্জ হাওড়া এক্সপ্রেস, শিয়ালদহ সহর্ষ হাটেবাজারে এক্সপ্রেস, কলকাতা গুয়াহাটি গরিবরথ এক্সপ্রেস, শিয়ালদহ পুরী দুরন্ত এক্সপ্রেস, হাওড়া আলিপুরদুয়ার তিস্তা তোর্সা এক্সপ্রেস, কলকাতা রাধিকাপুর এক্সপ্রেস, কামরূপ এক্সপ্রেসের মতো অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ট্রেনগুলি বাতিল করা হয়েছে। আগাম ঘোষণা ছাড়া এভাবে ট্রেন বাতিল হওয়ায় বেজায় ভোগান্তির শিকার যাত্রীরা।

তবে শুধু যে দুরপাল্লার ট্রেন যেমন বাতিল হচ্ছে তা নয়, তেমনই লোকাল ট্রেন চলাচলও থমকে গেছে। অনেক ট্রেনই পরিস্থিতি অনুযায়ী চালানো হচ্ছে।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নেতৃত্বাধীন সরকার দেশটিতে বসবাসরত ২০ কোটি মুসলিমকে এক ঘরে করতে নতুন এই আইনের বাস্তবায়ন করছে বলে মুসলিম মানবাধিকার সংগঠনের নেতারা দাবি করেছেন। তবে নরেন্দ্র মোদি এই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছেন। দেশটির একাধিক মানবাধিকার সংস্থা এবং একটি মুসলিম রাজনৈতিক দল নতুন এই নাগরিক আইনের বিরোধীতা করে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করেছে। তাদের যুক্তি, নতুন নাগরিকত্ব আইন সংবিধান এবং ভারতীয় ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্রের বৈশিষ্ট্যের বিপরীত।

রাজ্যসভায় এই আইন পাসে সমর্থন দিয়েছিল আসামে ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) রাজনৈতিক জোটসঙ্গী আসাম গণপরিষদ। আসাম গণপরিষদের নেতারা বলেছেন, তারা সমর্থন প্রত্যাহার করে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। একই সঙ্গে এই আইনকে চ্যালেঞ্জ জানাতে সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার দলীয় সিদ্ধান্ত হয়েছে।

শেয়ার করুন

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

মাদারীপুরে এক পুলিশ সদস্য সহ ০৪জন করোনা আক্রান্ত
মাদারীপুরে মোটরসাইকেল দূর্ঘটনায় নিহত ১
ঈদে ভবঘুরে পাগলদের মাঝে খাবার বিতরণ করলেন জনসেবা যুব কল্যাণে আমরা
পীরগঞ্জে চাঁদ রাতে চাঁদের হাসি দেখতে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের হাতে ঈদের উপহার
মাদারীপুরে নতুন করে ২১জনের করোনা শনাক্ত
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ হতে মাদারীপুরে খাদ্য সামগ্রী বিতরন

আরও খবর

সম্পাদক  প্রকাশক : এম শাহীন আলম।