• শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ০৮:৪৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
মাটিরাঙায় প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের পাশে দাঁড়ালেন ইউএনও আলীকদম সেনা জোন (৩১ বীর) কর্তৃক ২,৬৬,৬০৫ টাকা আর্থিক অনুদান প্রদান নিজের কণ্ঠস্বর বিক্রি করে সফলতা অর্জন রামগড়ে বাগান শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার রামগড় কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের জঙ্গলে পড়েছিল শ্রমিকের মরদেহ কাপ্তাইয়ে পাহাড় ধ্বসের  আজ ৭ বছর : এখনোও ঝুঁকিতে বসবাস করছে বহু মানুষ রাজধানীর পল্টনে বহুতল ভবনে আগুন চট্রগ্রামে শপথ নিলেন রাজস্থলী উপজেলার চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানরা পাংশায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত ৬ আসামি গ্রেপ্তার  রামগড় ৪৩ বিজিবির অভিযানে ভারতীয় মদ জব্দ কাপ্তাই নতুনবাজার আনন্দ মেলা গরুর বাজার: পাহাড়ি গরুর চাহিদা বেশী ক্রেতাদের কাপ্তাই সেনা জোনের উদ্যোগে  বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদান

মোংলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

আলী আজীম, মোংলা (বাগেরহাট): / ২১৭ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : সোমবার, ২২ জানুয়ারী, ২০২৪

আলী আজীম, মোংলা (বাগেরহাট):

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসকসহ অন্যান্য সেবাদানকারীদের উপর নারকীয় হামলা, সরকারি গাড়িতে অগ্নিসংযোগ, এম্বুলেন্স, জরুরী বিভাগ সহ অন্যান্য সরকারি স্থাপনা ভাঙচুর ও বিনষ্টকরণের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন করেছে মোংলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স।

সোমবার (২২ জানুয়ারি) দুপুর ১২টায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে এ বিক্ষোভ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোঃ শাহীন, আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মোঃ ইব্রাহিম হোসেন, মেডিকেল অফিসার ডা. স্বরূপ পোদ্দার, ডা. মৌসুমী ইয়াসমিন, ডা. আফসানা নাঈমা হাসান, নার্সিং সুপারভাইজার, নার্সিং ইনচার্জ, সিনিয়র স্টাফ নার্স, উপসহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার, মেডিকেল টেকনোলজিস্ট (ল্যাব), মেডিকেল টেকনোলজিস্ট (ডেন্টাল) ফার্মাসিস্ট, স্টোর কিপার, প্রধান সহকারিসহ হাসপাতালের অন্যান্য কর্মচারীরা।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার (১৯ জানুয়ারি) দিবাগত রাত ১২টার দিকে সিলেট-তামাবিল মহাসড়কের জৈন্তাপুরের ৪ নম্বর বাংলাবাজার রাংপানি এলাকায় প্রাইভেট কার পুকুরের পানিতে ডুবে চার তরুণ মারা যান। দুর্ঘটনার পর শুক্রবার রাতে চারজনকে উদ্ধার করে জৈন্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেন স্থানীয় লোকজন। চিকিৎসায় অবহেলার অভিযোগ তুলে হাসপাতাল ও স্টাফ কোয়ার্টার ভাঙচুর করেন। এ সময় হাসপাতালের পার্কিংয়ে থাকা সরকারি জিপ গাড়িতে আগুন ও অ্যাম্বুলেন্স ভাঙচুরের ঘটনাও ঘটে। নিহত চারজনই ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন, তবে তাঁদের কোনো পদ ছিল না।

এ ঘটনায় শনিবার (২০ জানুয়ারি) রাতে জৈন্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. সালাহ্উদ্দিন মিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় বাদী হয়ে মামলা করেন। মামলায় ২৫০ থেকে ৩০০ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করা হয়েছে।

এদিকে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ছাত্রলীগ কর্মী নেহাল পালের বাবা রনদিপ পাল বাদী হয়ে জৈন্তাপুর থানায় অপমৃত্যুর মামলা করেছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ