• রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ০৫:৩৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম
ঢাবিতে ভর্তিচ্ছুকদের জন্য ধারাবাহিকভাবে পার্বত্য চট্টগ্রাম ছাত্র পরিষদ পিসিসিপি’র ‘হেল্প ডেস্ক’ সঠিক তথ্যে ভোটার হয়ে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে ভুমিকা রাখতে হবে…ডেজী চক্রবর্তী মাটিরাঙায় জাতীয় বীমা দিবস উদযাপন জাতীয় বীমা দিবসে মানিকছড়িতে শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা ১নং কবাখালী সপ্রাবিতে পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এনায়েতপুরে মেয়েকে ইভটিজিং এর প্রতিবাদ করায় সাংবাদিককে মারধর, কিশোর গ্যাংয়ের লিডার সহ ৪ জন আটক বাঘাইহাট দারুল আরকাম ইবতেদায়ি মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের মাঝে পোশাক ও বার্ষিক ক্রীড়া পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত গুইমারাতে সেনাবাহিনীর মানবিক সহায়তা প্রদান কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ বিতরণ আলীকদমে একুশে বই মেলায় বীর বাহাদুর এমপি

রামগড়ে কৃষকদের মাঝে প্রচারনা ছাড়াই বোরো ধান ক্রয় কার্যক্রম উদ্বোধন

রামগড় প্রতিনিধি: / ৩৮২ জন পড়েছেন
প্রকাশিত : সোমবার, ২৪ মে, ২০২১

গুদামে গুদামে কৃষকের ধান, কৃষক বাঁচে, বাঁচে প্রাণ’ এ শ্লোগানকে ধারন করে জেলার রামগড়ে কৃষকদের মাঝে প্রচারনা ছাড়াই আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয়েছে বোরো ধান সংগ্রহ কার্যক্রম।

সোমবার সকালে রামগড় খাদ্য গুদামে উপজেলা নির্বাহি অফিসার ও উপজেলা ধান সংগ্রহ কমিটির সভাপতি মোঃ মাহমুদ উল্লাহ মারুফ এর সভাপতিত্বে এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন রামগড় উপজেলা চেয়ারম্যান বিশ্ব প্রদীপ ত্রিপুরা।

এসময় উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা হিমো চাকমা, খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আসাদুজ্জামান ভুঁইয়া, কৃষি কর্মকর্তা আলী আহমেদ, কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা রাশেদুল ইসলাম, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মনছুর আলী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা হিমো চাকমা জানান, এবার ১০৪ মেট্রিক টন বোরো ধান ক্রয়ের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে সংগ্রহ কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। তিনি বলেন, মণ প্রতি ১০৮০ টাকা দরে কৃষকদের কাছ থেকে ধান ক্রয় করা হবে। একজন কৃষকের কাছ থেকে সর্বোচ্চ ৩ মেট্রিক টন ধান ক্রয় করা হবে।

রামগড় উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আলী আহমেদ জানান, এ বছর উপজেলায় ৯১৫ হেক্টর জমিতে বোরা ধানের আবাদ হয়েছে। গড় উৎপাদন হেক্টর প্রতি ৬ দশমিক ১৫ মেট্রিক টন হারে প্রায় ৫ হাজার ৬২৭ দশমিক ২৫ মেট্রিক টন বোরা ধান উৎপাদন হয়েছে বলে তিনি জানান।

রামগড়ের কয়েকজন কার্ডধারী কৃষক নুরুল হুদা, আলী আক্কাস, রফিকুল ইসলাম, আবুল কাসেম জানায়, সরকার ধান কিনছে অথচ আমরা এখন পর্যন্ত জানতে পারেনি। নাম প্রকাশ না করার শর্তে একাধীক কৃষক জানান, খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আসাদুজ্জামান ভুইয়া দায়িত্বভার গ্রহন করার পর থেকে বিভিন্ন অজুহাতে সরাসরি কৃষক থেকে ধান ক্রয় করতে চান না। গুদামে ধান নিলে অনেক হয়রানির স্বীকার হতে হয় অথচ মিল মালিকরা আমাদের থেকে ধান কিনে গুদামে দিয়ে থাকে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ